জাজিরায় পূর্ব শত্রুতার জেরে প্রতিপক্ষের প্রায় তিন শতাধিক আম গাছ কর্তন

 

জাজিরা প্রতিনিধিঃ

শরীয়তপুর জেলার জাজিরা উপজেলার সেনেরচর ইউনিয়নে রিনা বেগমের ছেলে ইকবাল মাদবর এর আম বাগানের তিনশত আমগাছ প্রতিপক্ষরা কেটে ফেলে বলে অভিযোগ পাওয়া যায়।

সরজমিন গিয়ে দেখা যায় বাগানের আম গাছ গুলো কেটে মাটিতে শুইয়ে দেয়া হয়েছে। এ বিষয়ে রিনা বেগম বলেন, আমার স্বামির মৃত্যুর পর আমি আমার দুই ছেলেকে মানুষের বাড়িতে কাজ করে বড় করেছি ওরা ঢাকায় ফলের ব্যবসা করে। কয়েক বছর আগে দশ বছরের জন্য জমি লীজ নিয়ে বাড়ির কাছে এই আমবাগান করে। গত মৌসুমে প্রতিটি গাছে ৭ থেকে ১০ কেজি আম হয়েছে। রূপালী জাতের এই আম বেশি দামে বিক্রয় হয়। কিছুদিন আগে আমার ছেলে বাড়ির পাশের এক কড়া জমি কিনে, তা নিয়ে ইব্রাহিম মাদবর গং নানা ভাবে হুমকি দেয় এবং শালিস দরবার করে হেরে যায়। শালিশি দরবারে হেরে গিয়ে গতকাল ভোর রাতে আনুমানি ৫.৩০ ঘটিকার দিকে আমার আম বাগানের প্রায় তিনশত আম গাছ কেটে ফেলে। আমি এ বিষয়ে জাজিরা থানায় একটি অভিযোগ করেছি, আমি এই অন্যায়ের বিচার চাই।

প্রত্যক্ষদর্শী মোশারফ মাদবর বলেন, আমার পুকুরের মাছ দেখতে ভোরে বের হলে দেখতে পাই আমার পুকুরের নিকটে ইকবাল মাদবরের আমবাগানে ইব্রাহীম মাদবর, বারেক মাদবর, মামুন, সবুজ, আজিজুলসহ প্রায় ২০/২৫ জন লোক গাছ কেটে ফেলছে। আমি এগিয়ে গেলে আমাকেও হুমকি দেয়।

এ বিষয়ে জাজিরা থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আজহারুল ইসলাম মুঠফোনে বলেন, আমি আজ বিলাসপুর ইউনিয়নে ব্যস্ত থাকায় ওখানে পুলিশ পাঠাতে পারিনি। কাল লোক পাঠিয়ে তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেব।